ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৬ মে ২০২০ , , ৩ শাওয়াল ১৪৪১

ধর্মঘটে অচল চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙ্গর

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম । সি এন এন বাংলাদেশ

আপডেট: নভেম্বর ৩০, ২০১৯ ১২:৩৫ দুপুর

[addtoany]

নৌযান ধমর্ঘটে চট্টগ্রাম বন্দরের বহির্নোঙ্গর কার্যত অচল হয়ে পড়েছে। মোংলা বন্দরেও বন্ধ পণ্য খালাস। এতে ক্ষতির মুখে পড়ছে আমদানিকারক ও ব্যবসায়ীরা।

চট্টগ্রাম বন্দরের পার্শ্ববর্তী ১৬টি ঘাটে অলস বসে আছে শত শত লাইটারেজ জাহাজ এবং অয়েল ট্যাংকার। অথচ এসব জাহাজের ব্যস্ত থাকার কথা ছিল বন্দরের বহির্নোঙ্গরে মাদার ভ্যাসেল থেকে পণ্য খালাসের কাজে। কিন্তু শ্রমিকরা ১১ দফা দাবীতে ধর্মঘটের পাশাপাশি মিছিল সমাবেশ করছে ঘাটগুলোতে।

বন্দরের বহির্নোঙ্গরে বর্তমানে পণ্যবাহী জাহাজ রয়েছে ৭৮টি। এর মধ্যে ৪৯টি পণ্য খালাসের অপেক্ষায় ছিল। বাকি ২৯টি ছিল পণ্য খালাসের শিডিউল নেয়ার অপেক্ষায়। কিন্তু শনিবার সকাল ৮টার পর থেকে কোনো লাইটারেজ জাহাজেই বহির্নোঙ্গরে যায়নি। এমনকি আগে থেকে পণ্য খালাসে থাকা জাহাজগুলো’ও খালাস শেষ না করে ঘাটে ফিরে আসছে।

চট্টগ্রাম ডব্লিউটিসি’র কো-কনভেনার শফিক আহমেদ বলেন, আমদানিকারকদের ড্যামারেজ দিতে হচ্ছে। এক এক মাদারশিপে ১০ থেকে ১৫ হাজার ডলার পর্যন্ত ড্যামারেজ আছে। এই মাল আনলোড বন্ধ থাকলে সাধারণ মানুষের অনেক ক্ষতি হবে।

দেশের ৭৫ শতাংশ পণ্য পরিবহন হয় নৌ পথে। মাদার ভ্যাসেল থেকে পণ্য নিয়ে লাইটারেজ জাহাজগুলো ঘাটে এবং নদী বন্দরে পৌঁছে দিয়ে আসে।